স্বামীকে তালাক দিয়ে নানাকে বিয়ে করতে নাতনির অনশন

প্রকাশিত: ১:১১ অপরাহ্ণ , ডিসেম্বর ২৩, ২০২০

স্বামী সংসার সবই ছিলো । কিন্তু অতিরিক্ত লোভের কারণে এখন সব হারাতে বসেছে এক তরুণী।জানা যায়, জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলার গোয়ালেরচর ইউনিয়নের সভারচর গ্রামে বিয়ের দাবিতে এক তরুণী তার প্রেমিক নানার বাড়িতে অনশন চালিয়ে যাচ্ছেন। মঙ্গলবার (২২ ডিসেম্বর) এ ব্যাপারে আইনগত প্রতিকার চেয়ে ওই তরুণীর বাবা বাদী হয়ে ইসলামপুর থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন।

স্থানীয়রা জানান, সভারচর পশ্চিমপাড়ার ২২ বছর বয়সী জহুরুল হকের মেয়ের সাথে পার্শ্ববর্তী মৃত সাহেব আলীর ছেলে সাদ্দাম শেখের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে শুরু হয়। ছেলেটি সম্পর্কে মেয়েটির নানার চাচাতো ভাই।

অনশনকারী তরুণী জানান, প্রায় একবছর আগে পার্শ্ববর্তী মোহাম্মদপুর গ্রামে তার বিয়ে হয়েছিল। বিয়ের পর থেকেই দুঃসম্পর্কের নানা সাদ্দাম তাকে প্রেমের প্রস্তাব দেন প্রতিনিয়ত। এরপর তিনি প্রেমের ফাঁদে পা দেন এবং পাঁচ মাস আগে সাদ্দামের কথায় স্বামীকে তালাক দেন। তালাকের পর প্রেমিক সাদ্দামকে বিয়ের কথা বললে টালবাহানা করতে থাকেন। বিয়ে না করাতে এক পর্যায়ে ১৬ ডিসেম্বর রাতে সাদ্দামের বাড়ি বিয়ের দাবিতে অনশন শুরু করেন তিনি। এ ঘটনার দুদিন পর সাদ্দাম আত্মগোপনে চলে যান।

ইসলামপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবু রায়হান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ বিষয়ে অভিযোগ পেয়েছি। কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।