রাবিতে বিতর্ক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ

শামীম রেজা শামীম রেজা

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

প্রকাশিত: ৭:২৯ অপরাহ্ণ , নভেম্বর ১, ২০২১

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) আন্তঃঅনুষদ বিতর্ক প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়েছে। সোমবার বিকেল ৫ টায় শহীদ জিয়াউর রহমান হলের প্রাধ্যক্ষ কক্ষে বিজয়ী দল এবং রানার্সআপ দলকে ক্রেস্ট প্রদান করেন আমন্ত্রিত অতিথিরা।

বিতর্কের প্রতিপাদ্য বিষয় ছিলো ‘বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক সংস্কারের চেয়ে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অধিক গুরুত্বপূর্ণ’। এর বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন হয় বিরোধী দলীয় বিজ্ঞান অনুষদ এবং রানার্সআপ হয় সরকার দলীয় আইন অনুষদ। প্রতিযোগিতাটির আয়োজন করেছে শহীদ জিয়াউর রহমান হলের ছাত্রদের দ্বারা পরিচালিত বিতর্ক সংগঠন ‘জিয়া হল ডিবেটার্স’।

প্রতিযোগিতায় ডিবেটর অব দ্যা ফাইনাল নির্বাচিত হন বিজ্ঞান অনুষদের মেহেদী হাসান মাহিন এবং
ডিবেটর অব দ্যা টুর্নামেন্ট নির্বাচিত হন আইন অনুষদের সাধন মুখার্জী। বিভিন্ন অনুষদ এবং হল থেকে মোট ১৪ টি দল এ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেন।

অনুষ্ঠানে আইন বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক হাসিবুল আলম প্রধান বলেন, সংস্কৃতির অন্যতম ধারক হলো বিতর্ক। এটার মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা সৃজনশীল জ্ঞানের মধ্যে নিভৃত থাকবে। যার ফলে তারা সন্ত্রাস, ত্রাস, জঙ্গীবাদসহ নানা ধরনের অপরাধ থেকে দূরে থাকবে।

তিনি আরও বলেন, বিতর্ক শৈল্পিকভাবে উপস্থাপন করতে পারলে জড়তা কেটে যায়। এর মাধ্যমে ভাইভা বোর্ডে নিজেকে ফুটিয়ে তোলার মাধ্যমে যোগ্য হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করা সম্ভব।

বিতর্ক প্রতিযোগিতার প্রধান পৃষ্ঠপোষক ছিলেন শহীদ জিয়াউর রহমান হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক সুজন সেন। তিনি বলেন, ‘খেলাধুলা যেমন শারীরিক গঠনকে মজবুত করে ঠিক তেমননি বিতর্ক অথবা এই ধরণে সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডগুলো মানুষের বুদ্ধিমত্তা গঠনে সহযোগিতা করে। আমরা চাই আমাদের ছেলেরা সব দিকে এগিয়ে যাক। দেশ থেকে বিদেশে সব জায়গায় তারা নিজ বিশ্ববিদ্যালয়কে উপস্থাপন করুক, সেটাই আমাদের কামনা। আর এর জন্য আমরা সব ধরণের সহযোগিতা করতে প্রস্তুত।

এছাড়া পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বিজ্ঞান অনুষদের প্রতিনিধি হিসেবে ছিলেন পরিসংখ্যান বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক গোলাম হোসেন, আইন অনুষদের প্রতিনিধি হিসেবে ছিলেন আইন বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক হাসিবুল আলম প্রধান। এছাড়াও শহীদ জিয়াউর রহমান হলের আবাসিক শিক্ষক সালাহ উদ্দীন সাইমুম ও ড. আলী আশরাফ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, তিন দিনব্যাপী এই অনলাইন বিতর্ক প্রতিযোগিতাটি শুরু হয় চলতি বছরের ২৬ অাগস্ট। এর ফাইনাল প্রতিযোগিতাটি ২৮ অাগস্ট অনুষ্ঠিত হয়।