মেয়ে তুমি আকাশ দেখ – অনিন্দ্য টিটো

প্রকাশিত: ৬:৫৭ অপরাহ্ণ , মার্চ ১৫, ২০২১
ভালবাসলেই যায় না ছোঁয়া
ওই দুটি হাত;
আঁধার শেষে রৌদ্র প্রেমে
ফোটা প্রভাত!
বললে সেইদিন মেয়ে তুমি-
শুনছিলাম সব মৌন আমি!
হয় যদি হয় প্রেমের কারণ
তবুও কি গো দেখতে বারণ?
ডাগর ডাগর ওই দুটি চোখ
ছড়িয়ে থাকা এলোচুলে আপেল ফলের চকচকে গাল
কুঁড়ির মত ফুটে থাকা গোলাপী ঠোঁট
দেহ ভাঁজের কলকব্জা কিংবা নথের মায়ার জাল।
দেখতে বারণ?
মুক্তা ঝরা উছলে পরা প্রাণের হাসি
ভরাট বুকে উতরে ওঠা ঢেউ’র রাশি!
কী ক্ষতি হয় দেহ প্রেমে
নেশার আগুন যদি ছোটে;
ভালবাসার জোছনা রাতে
মনোরঞ্জনের চাঁদটি ওঠে!
কী ক্ষতি হয়
বল মেয়ে, বল তুমি
আলিঙনে যদি, বৃক্ষ-ফুলে উঠে ভরে
তোমার ঊষর ভূমি!
বলছি আমি
শুনছ তুমি?
তোমার কাছে ভালবাসা
ফুলদানিতে সাজিয়ে রাখা
গন্ধ ছাড়া ভ্রমরবিহীন
কিছু কাগজ ফুল?
মেয়ে তুমি আকাশ দেখ
মেঘের পরে বৃষ্টি ঝরে
ভাঙ ভাঙ ভাঙ তোমার
মনের করুণ ভুল!
৥ ৥ মার্চ ১৪,২০২১।
ছবিঋণ- শ্যামল নন্দী, আলোকচিত্রী