স্বপ্ন বাসর,,,,,

প্রকাশিত: ৬:৪৩ অপরাহ্ণ , নভেম্বর ১৭, ২০২০

মনিরুজ্জামান মানিক ::

কন্ঠের মাধুর্যতায় বিমোহিত মনপ্রাণ। তোমার কন্ঠে কবিতা শুনতে শুনতে এভাবে স্বপ্নের দেশে, প্রশান্তির মহাসাগরে হারিয়ে যাবো ভাবতেও পারিনি।

স্বপ্ন দেখতে দেখতে কখন যে ঘুমিয়ে পরেছি,একদম টের পাইনি। ঘুম তো নয়,যেন সুখ স্বর্গের পরশ। এ যেন কবিতা নয়, যেন এক বাউণ্ডুলে প্রেমিকের জীবনের প্রতিচ্ছবি,জীবনেরই ইতিকথা।

কবিতা আমার সব সময় ভালো লাগার,কবিতা আমার ভালোবাসার। কবিতা হঠাৎ করেই প্রেমকে কাছে টানে, খুব কাছে। কবিতা কখনো কখনো প্রেমকে দূরে ঠেলে, বহুদূরে সীমান্তের ওপারে দুর দুরান্তে। কবিতা কখনো বন্ধুর পথ,কবিতা কখনো স্বপ্নিল রঙবেরঙের সহজ ধারাপাত।

তোমার কন্ঠ ধ্বনি, কবিতার শব্দশৈলী,জুতসই গাঁথুনি আমাকে মোহাবিষ্ট করছে শরীরের প্রতিটি ভাঁজে ভাঁজে, শিরায় শিরায় উপশিরায়। জাদুকরী এক মহৌষধের নাম কবিতা, মিষ্টি সুরের জয়োৎসবের মহাকাব্য জীবন্ত কবিতা।

আসলে জীবন এমনই হয়,বড় জটিল এক ব্যবস্থাপনা। দুদিন আগেও তোমাকে চিনতাম না, পরিচয় ছিলো না,জানাশুনা ছিলো না। অদ্ভুত এক নায়কীয়তায় তুমি ঝড়ের বেগে কাছে আসলে, ভালোবাসার অভয় বাণী শুনালে।

বড্ড অসময়ে ভালোবাসার রেলগাড়ীতে আমাকে টেনে তুললে। ঝিক ঝিক করে গাড়ি চলছে তো চলছে। উঁচু নীচু রাস্তায় হাওয়ার বেগে গাড়ি চলছে,মন দুলছে।

তুমি আমার জীবনে কবিতার বারতা নিয়ে এসেই হৃদয়ে জড়িয়ে গেলে,বাউণ্ডুলে জীবনটা নতুন চমকে বদলে দিলে। তুমি আমার জোছনা রাতের ছন্দ আনন্দের কবিতা।

শুনে শুনে পরাণ জুড়াবো বিষন্ন মনটাকেও সুখান্বেষণে জাগিয়ে তুলবো। এমনি করেই তোমার আমার প্রতিটি রাতই হউক তোমার সুললিত কন্ঠে কবিতা শোনার রাত।

অকৃত্রিম ভালোবাসায় মনপ্রাণকে রাঙিয়ে দেওয়ার রাত,কবিতার রাত,ভালোবাসার স্বপ্ন বাসরের রাত।