বেগমগঞ্জে ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

প্রকাশিত: ৮:১৪ অপরাহ্ণ , জুলাই ৭, ২০২২

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার গোপালপুর ইউনিয়নে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মো. হাসিবুল বাশার (২৫) নামে এক ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে তার প্রতিপক্ষ।

বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে গোপালপুর ১নং ওয়ার্ড কোটরা মোহাব্বতপুর গ্রামের জোড়া পোল এলাকার প্রধান সড়কের ওপর এ হত্যার ঘটনা ঘটে।

নিহত হাসিবুল বাশার ওই গ্রামের মৃত আবুল বাসারের ছেলে। সে উপজেলা ছাত্রলীগের সদস্য। স্থানীয় যুবলীগ ও ছাত্রলীগের বিরোধের জেরে যুবলীগের হাসান বাহিনীর লোকজন এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গোপালপুর ইউনিয়ন যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের মধ্যে আধিপত্য নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। একাধিকবার হাসান ও সোহাগ গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এসব ঘটনা এবং পূর্ব বিরোধের জেরে বৃহস্পতিবার দুপুরে স্থানীয় সোবহান মার্কেট দিয়ে বন্ধু বিপ্লবের মোটরসাইকেল নিয়ে বিপ্লবসহ গরু বাজারের দিকে যাচ্ছিলেন হাসিবুল। এসময় হাসানের নেতৃত্বে মাসুম, মিন্টু, জয়, জাহিদসহ কয়েকজন অস্ত্রধারি তাদের গতিরোধ করে এবং সোহাগ গ্রুপের সদস্য হাসিবুলকে তুলে নিয়ে যায়।

নিহতের চাচা মো. সিরাজ উদ্দিন জানান, হাসানের নেতৃত্বে সন্ত্রাসীরা সোবহান মার্কেট থেকে হাসিবুলকে তুলে জোড়া পোল এলাকায় নিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ও গলা কেটে জখম করে পালিয়ে যায়। পরে এলাকার লোকজনের সহযোগিতায় তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক হাসিবুলকে মৃত ঘোষণা করেন। তিনি নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে এ হত্যাকাণ্ডের সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন।

বেগমগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মীর জাহেদুল হক রনি বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, রাজনৈতিক আধিপত্য নিয়ে স্থানীয় দুই পক্ষের বিরোধের জেরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। স্থানীয় হাসান গ্রুপ এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারে পুলিশের একাধিক দল কাজ করছে।

ওসি আরও জানান, নিহতের মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘটনায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।