বিতর্কিত তবুও তিনি তদন্ত কমিটিতে

প্রকাশিত: ৮:০৫ অপরাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ১১, ২০২২

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল ও কাজী নজরুল ইসলাম হলের ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় এক বিতর্কিত নেতাকে নিয়ে গঠন করা হয়েছে ছাত্রলীগের তদন্ত কমিটি।

শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ইলিয়াস হোসেন সবুজ ও সাধারণ সম্পাদক মো. রেজাউল ইসলাম মাজেদ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানানো হয়।

এই তদন্ত কমিটিতে আছেন বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মেহেদী হাসান বিদ্যুৎ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রকিবুল হাসান রকি ও ইমতিয়াজ শাহরিয়ার।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ২০১৯ সালে ১০ এপ্রিল রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের কাঁঠাল তলায় নৃবিজ্ঞান বিভাগের ৮ম ব্যাচের এক ছাত্র এবং প্রত্নতত্ব বিভাগের ১১ তম ব্যাচের এক ছাত্রীকে ডেকে নিয়ে যান বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মেহেদী হাসান বিদ্যুৎ ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শোয়েব হাসান হিমেল। এক পর্যায়ে ছাত্রীকে উত্যক্ত করার চেষ্টা করলে ছাত্রীর সাথে থাকা ছাত্রটি বাঁধা দেয়। পরবর্তীতে ছাত্রলীগের এই নেতা ক্ষুদ্ধ হয়ে ছাত্রকে (বাঁধা দেওয়া) বেধড়ক মারধর করেন বলে অভিযোগ উঠেছিল।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতা বলেন, শৃঙ্খলা বিনষ্টকারীকে বারবার কেনো তদন্ত কমিটিতে রাখা হচ্ছে বুঝতে পারছি না। যার নামে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগ রয়েছে তাকে নিয়ে কীভাবে এরকম একটি ঘটনার তদন্ত কমিটি করা হয়!

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ইলিয়াস হোসেন সবুজ বলেন, হাসান বিদ্যুৎ এর নামে যে অভিযোগ গুলো অতীতে ছিল তার কোনো তথ্যপ্রমাণ না পাওয়ায় তখনই আমরা সাংগঠনিক সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম এবং বর্তমানের ঘটনার সাথে হাসান বিদ্যুৎ এর কোনো সম্পৃক্ততা না থাকায় সিনিয়র হিসেবে তাকে তদন্ত কমিটিতে রাখা হয়েছে।

Loading