ডিজিটাল রূপান্তরের কাজ সম্পন্ন করা আবশ্যক’

প্রকাশিত: ৬:৩৩ অপরাহ্ণ , জুন ২৮, ২০২২

দেশের প্রচলিত শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরের কাজ সম্পন্ন করা আবশ্যক বলে মন্তব্য করেছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

তিনি বলেন, ডিজিটাল যুগের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরের দায়িত্ব রাষ্ট্রকেই নিতে হবে। শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরের ক্ষেত্রে সংযোগ ও কনটেন্ট অবশ্যই মানসম্মত হতে হবে।

মঙ্গলবার (২৮ জুন) রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁয়ে কানেক্টিভিটি ফর এডুকেশনাল ইনস্টিটিউশন্স ফর ব্লেন্ডেড এডুকেশন বাংলাদেশ ব্রডব্যান্ড পলিসি-২০২০ শীর্ষক এক কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মোস্তাফা জব্বার বলেন, ডিজিটাল শিক্ষার জন্য শিক্ষকদেরও প্রশিক্ষণ দিয়ে দক্ষতা বাড়াতে হবে। কারণ, শিক্ষকরা শিক্ষা দেওয়ার উপযোগী না হলে শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তর বাস্তবায়ন সম্ভব নয়।

ডিজিটাল শিক্ষা ছাড়া ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রচেষ্টা ফলপ্রসূ হবে না উল্লেখ তিনি আরও বলেন, ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য ডিজিটাল সংযুক্তির মহাসড়ক তৈরি করে দেবে। কিন্তু শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে তার ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব নিতে হবে।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত কর্মসূচি সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠার সংগ্রাম। ইতোমধ্যে আমরা দেশের প্রায় প্রতিটি ইউনিয়নে অপটিক্যাল ফাইভার সংযোগ স্থাপন সম্পন্ন করেছি। দেশের দুর্গম অঞ্চলে অপটিক্যাল ফাইভার নেটওয়ার্ক স্থাপন সম্ভব না হওয়ায় আমরা বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট -১ এর মাধ্যমে দুর্গম অঞ্চলে সংযোগ স্থাপন করছি।

মন্ত্রী করোনাকালে ডিজিটাল প্রযুক্তির মাধ্য শিক্ষা দেওয়ার বিষয়টি উল্লেখ করে বলেন, টেলিভিশনের মাধ্যমে যে পাঠদান দেওয়া হয় তা ওয়ানওয়ে। এ পদ্ধতিতে শিক্ষার্থীদের শিক্ষকদের কাছে প্রশ্ন করার সুযোগ থাকে না। এ জন্য শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরের কাজ সম্পন্ন করা আবশ্যক।