সিনহা হত্যা মামলার রায় সোমবার

প্রকাশিত: ৮:১৭ অপরাহ্ণ , জানুয়ারি ৩০, ২০২২

অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খানকে গুলি করে হত্যা মামলার রায় আগামীকাল সোমবার ঘোষণা করা হবে। আসামীদের সর্বোচ্চ শাস্তি চায় রাষ্ট্রপক্ষ। তবে বাদীপক্ষ অপরাধ প্রমাণে ব্যর্থ হয়েছে দাবী আসামী পক্ষের। গত ১২ জানুয়ারি রাষ্ট্রপক্ষের যুক্তি উপস্থাপন শেষে রায়ের তারিখ নির্ধারণ করেন কক্সবাজারের জেলা ও দায়রা জজ।

প্রায় দেড় বছর পর সোমবার হতে যাচ্ছে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলার রায়। চার মাসের বেশি সময় তদন্ত শেষে ২০২০ সালে ১৫ জনকে অভিযুক্ত করে আভিযোগপত্র দেয় র‌্যাব। যেখানে বলা হয় সিনহা হত্যাকান্ড পরিকল্পিত। আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন ১২ জন। ৮৩ জন সাক্ষীর মধ্যে ৬৫ জন আদালতে সাক্ষ্য দিয়েছেন।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এডভোকেট ফরিদুল আলম জানান, “পূর্ব পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। আদালতের কাছে দাবি জানিয়েছি এই আসামীর সর্বোচ্চ শাস্তির, যে শাস্তি দৃষ্টান্ত হিসাবে থাকবে মানুষের কাছে, যাতে মানুষ আইনের প্রতি আস্থাশীল হয়।”

এ বিষয়ে বাদী পক্ষের আইনজীবী এডভোকেট মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর বলেন, “লিয়াকত এবং প্রদীপ এই দুজনকে ফাঁসির দণ্ডদেশ দেওয়া উচিৎ।”

তবে আসামিপক্ষের আইনজীবী এডভোকেট রানা দাশ গুপ্ত বলেন, অপরাধ প্রমাণ করতে ব্যর্থ হয়েছে রাষ্ট্রপক্ষ। তিনি বলেন, “আমরাও চাই বিজ্ঞ আদালত ভয়-ভীতিহীন ভাবে, আমাদের যে নীতিমালার যে অবস্থা এটাকে সামনে রেখে নিশ্চই রায় প্রদান করবেন।”

২০২০ সালের ৩১ জুলাই রাতে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সিনহা। সরকারি কাজে বাধা এবং মাদক আইনে দুটি মামলা করে পুলিশ। ঘটনার মোড় ঘুরে পুলিশের বিরুদ্ধে সিনহার বড় বোনের মামলায়। এই মামলায় বর্তমানে কারাগারে আছেন ১৫ জন।