বাঁশখালীতে নিহতদের পরিবার পেল ৩৫ লাখ টাকা

প্রকাশিত: ৫:২৪ অপরাহ্ণ , জুলাই ২৫, ২০২১

চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের শ্রমিকদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে নিহত ৭ পরিবারকে হাইকোর্টের নির্দেশে ৫ লাখ টাকা করে মোট ৩৫ লাখ টাকা দিয়েছে এস আলম গ্রুপ।  

রোববার (২৫ জুলাই) ওই ঘটনায় রিট মামলা সংক্রান্ত একাধিক আইনজীবী বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন।

হাইকোর্টের বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বাধীন একক বেঞ্চে বাঁশখালীতে নিহতদের পরিবারকে টাকা দেওয়া সংক্রান্ত প্রতিবেদন দাখিল করা হয়েছে। এস আলম গ্রুপের আইনজীবী মোহাম্মদ আরশাদুর রহমান এ প্রতিবেদন দাখিল করেন। তবে ওই ঘটনায় ডিসি ও এসপির নেতৃত্বে গঠন করা দুটি তদন্ত কমিটির প্রতিবেদন আদালতে দাখিল করার জন্য সময় চেয়ে আবেদন করেছেন রাষ্ট্রপক্ষ।

সংশ্লিষ্ট আদালতের ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিপুল বাগমার বলেন, ডিসি ও এসপির নেতৃত্বে গঠিত দুটি তদন্ত কমিটির প্রতিবেদন দাখিল করতে আদালত ৪৫ দিন সময় দিয়েছিলেন। আমরা আদালতের কাছে আরো সময় চেয়েছি।

গত ৪ মে চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের শ্রমিকদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে নিহতদের প্রত্যেক পরিবারকে আপাতত ৫ লাখ টাকা করে দিতে এস আল গ্রুপের প্রতি নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

হাইকোর্টের বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সরদার মো. রাশেদ জাহাঙ্গীরের সমন্বয়ে গঠিত ভার্চুয়াল বেঞ্চ এই আদেশ দেন। আদালতে ওইদিন রিটের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট জেড আই খান পান্না, অ্যাডভোকেট সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান ও অ্যাডভোকেট সৈয়দা নাসরিন। ৬টি মানবাধিকার সংগঠনের করা পৃথক দুটি রিট আবেদনের ওপর শুনানি নিয়ে আদেশ দেন আদালত।

আদালত অন্তবর্তীকালীন নির্দেশনার পাশাপাশি রুল জারি করেন। রুলে গ্রামবাসী ও শ্রমিকের নিরাপত্তা দিতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, নিহতের প্রত্যেক পরিবারকে ৩ কোটি টাকা করে ও আহতদের ২ কোটি টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, ওই ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্তের কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতে চাওয়া হয়েছে। এছাড়া গ্রামবাসী ও শ্রমিক নিরাপত্তা প্রতিরোধে ব্যবস্থা নিতে রাষ্ট্রপক্ষের ব্যর্থ কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না তা-ও জানতে চাওয়া হয়েছে। স্বরাষ্ট্র, আইন, শিল্প, বাণিজ্য, খনিজ সম্পদ, পরিবেশ সচিব, পুলিশ মহাপরিদর্শক, পরিবেশ অধিদপ্তর, চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক, এসপি, এস আলম গ্রুপসহ সংশ্লিষ্ট কম্পানির প্রতিনিধিদের রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

গত ১৭ এপ্রিল চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্রে শ্রমিকদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে ৭ শ্রমিক নিহত ও অন্তত ২০ জন আহত হয়।