শেখ রাসেলের ৫৯তম জন্মদিন

প্রকাশিত: ১০:০৮ পূর্বাহ্ণ , অক্টোবর ১৮, ২০২২

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ পুত্র শহীদ শেখ রাসেলের ৫৯তম জন্মদিন ১৮ অক্টোবর। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, গত বছর থেকে দিনটি ‘শেখ রাসেল দিবস’ হিসেবে পালিত হচ্ছে।

দিবসটি উপলক্ষে পৃথক বাণী দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেইসঙ্গে রাষ্ট্রীয় ও দলীয়ভাবে নানা কর্মসূচি পালনের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। শেখ রাসেল জাতীয় দিবসের এবারের মূল প্রতিপাদ্য হচ্ছে- ‘শেখ রাসেল নির্মলতার প্রতীক, দুরন্ত প্রাণবন্ত নির্ভীক’।

শেখ রাসেল ১৯৬৪ সালের ১৮ অক্টোবর বঙ্গবন্ধুর স্মৃতি-বিজড়িত ধানমন্ডির ঐতিহাসিক ৩২ নম্বরের বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট মানবতার ঘৃণ্য শত্রু খুনি-ঘাতকচক্রের নির্মম বুলেটের হাত থেকে রক্ষা পাননি শিশু রাসেলও। জাতির পিতার সঙ্গে নরপিশাচরা নিষ্ঠুরভাবে তাকেও হত্যা করে। তখন তিনি ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনিরা তাকে হত্যা করে বঙ্গবন্ধুর রক্তের উত্তরাধিকার নিশ্চিহ্ন করতে চেয়েছিল। ইতিহাস সাক্ষ্য দেয়- তাদের সেই অপচেষ্টা ব্যর্থতায় পর্যবসিত হয়েছে।

শেখ রাসেল দিবস উপলক্ষে মঙ্গলবার সকাল ১০টায় শেখ রাসেল পদক-২০২২ বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনে শেখ রাসেল শিশু-কিশোর পরিষদ এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে এ অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি অংশ নেবেন।

শহীদ শেখ রাসেলের জন্মদিনে নানা কর্মসূচি নিয়েছে আওয়ামী লীগ। মঙ্গলবার সকাল ৯টায় বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত শহীদ শেখ রাসেলসহ ১৫ আগস্টে নিহত সব শহীদের সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ, ফাতেহা পাঠ, মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে। দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের শেখ রাসেলের শুভ জন্মদিন ‘শেখ রাসেল দিবস’ উপলক্ষে আয়োজিত কর্মসূচিতে যথাযথভাবে স্বাস্থ্য বিধি মেনে অংশ নিতে দলীয় নেতাকর্মী, সমর্থক ও সর্বস্তরের জনগণের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন। সেই সঙ্গে সারাদেশে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনগুলোর সব স্তরের নেতাকর্মীর প্রতি বিভিন্ন উপযোগী কর্মসূচি পালনেরও আহ্বান জানান তিনি।