চ্যাম্পিয়নদের রাজসিক সংবর্ধনা

প্রকাশিত: ৬:৪৮ অপরাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ২১, ২০২২

দেশে ফেরার পর বিমানবন্দরে কেক কেটে ও ফুলের মালা দিয়ে সাফজয়ী নারীদের রাজসিক সংবর্ধনা দেওয়া হয়েছে। যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান নিজেই সাবিনা-কৃষ্ণাদের মালা পরিয়ে দেন।

এর আগে বুধবার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দুপুর ১টা ৪০ মিনিটে চ্যাম্পিয়নদের বহনকারী বিমান অবতরণ করে।

সাবিনা-কৃষ্ণাদের বরণ করে নিতে সকল প্রস্তুতি সেরে রাখে বাফুফে। ইতোমধ্যে দলটির জন্য তৈরি করা ফুটবল হাতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি সম্বলিত ছাদখোলা দ্বিতল বাস বিমানবন্দরে অবস্থান করছে। বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন করপোরেশন (বিআরটিসি) এর ব্যবস্থা করেছে।

বেলা সাড়ে ১১টায় মতিঝিল থেকে নানা রঙে সজ্জিত বাসটি হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের উদ্দেশে রওনা হয় গোল্ডেন গার্লসদের রিসিভ করার জন্য। বাসের একপাশে ফুটবল হাতে মেয়েদের উৎসাহ (স্বাগত) দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী। লাল-সাদা ও সবুজ রঙে শোভা পাচ্ছে বাসটি। তবে চ্যাম্পিয়ন লেখা স্বর্ণাক্ষরে।

বিমানবন্দরে উপস্থিত রয়েছেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান। আরও আছেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সচিবসহ অন্যরা। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের কর্মকর্তারাও রয়েছেন মেয়েদের বরণ করে নিতে, তবে বাফুফে সভাপতি সালাউদ্দিন যাননি বিমানবন্দরে। তিনি বাফুফে ভবনে বরণ করে নেবেন।

যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় এবং বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন বিমানবন্দরে ফুটবলারদের যৌথভাবে সংবর্ধনা দিচ্ছে। সেখানেই সাফজয়ী ফুটবলারদের ফুল দিয়ে বরণের পাশাপাশি মিষ্টিমুখ করানো হয়।

এর আগে গত সোমবার নেপালের দশরথ স্টেডিয়ামে স্বাগতিক নেপালকে ৩-১ গোলে উড়িয়ে প্রথমবার সাফে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে বাংলাদেশ নারী দল।