ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্র-বোমাসহ গ্রেফতার ৮

প্রকাশিত: ৫:১২ অপরাহ্ণ , ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২২

নরসিংদীর মাধবদীতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্র-বোমাসহ ৮ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার দিবাগত গভীর রাতে মাধবদী থানার কোতয়ালীর চর বিলপাড়ের একটি পরিত্যক্ত ইটভাটায় অভিযান চালিয়ে থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে নরসিংদী পুলিশ সুপার কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাহেব আলী পাঠান।

গ্রেফতারকৃতরা হল- নরসিংদীর মাধবদী থানার ছোট বালাপুর এলাকার রমিজ উদ্দিনের ছেলে মোঃ ইয়াকুব আলী (৪০), ভলবদ্রদী এলাকার মনসুর আলীর ছেলে মো: মতিন মিয়া (৩২), শ্যামরাকান্দি এলাকার আলাউদ্দিনের ছেলে মো: হাসান আলী (২২), নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার থানার পরাবর্দী এলাকার মফিজ উদ্দিনের ছেলে আইনুল হক (২৪), বালিয়াপাড়া এলাকার জলিল মিয়ার ছেলে মো: ইয়াকুব (১৯), মৃত আব্দুর রহিমের ছেলে মো: আল আমিন (২৩), নয়নাবাদ এলাকার রশিদ ভূইয়ার ছেলে মো: রনি ভূইয়া (২৬) ও মৃত চেরাগ আলীর ছেলে মো: শরীফুল ইসলাম (২৬)।অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাহেব আলী পাঠান জানান, একদল ডাকাত কোতয়ালীর চর বিলপাড়ের একটি পরিত্যক্ত ইটভাটার ভেতরে বসে ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে- এমন গোপন তথ্যের ভিত্তিতে সেখানে অভিযান চালায় মাধবদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দুজ্জামানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ। এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ১০/১২ জনের ডাকাত দল পুলিশকে লক্ষ্য করে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে পালানোর চেষ্টা করে। এসময় ডাকাত ইয়াকুব তার হাতে থাকা পিস্তল দিয়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি করার চেষ্টা করে। এসময় কয়েকজন পালিয়ে গেলেও পুলিশ ৮ জনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

এসময় গ্রেফতারকৃতদের দখল থেকে ১টি বিদেশী পিস্তল, ৪ রাউন্ড গুলি, ৩০০ পিস ইয়াবা, বোমা তৈরির সরঞ্জাম গান পাউডার, তিনটি ককটেল, ১টি হাতুড়ি, ৪টি দা, একটি পিকআপ ও সিএনজিচালিত অটোরিকশা জব্দ করা হয় বলেও জানান তিনি।

এদিকে, গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে ইয়াকুব আলীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় ১৩টি ডাকাতি মামলা রয়েছে। এছাড়া অন্যান্যদের বিরুদ্ধেও একাধিক মামলা রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

Loading