ত্রিপুরার পাহাড়ি ঢলে আখাউড়া নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

প্রকাশিত: ১০:৪৭ পূর্বাহ্ণ , জুলাই ২২, ২০২০

অব্যাহত ভারী বর্ষণ ও ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের পানিতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকাগুলোর নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে।
মঙ্গলবার রাতে উপজেলার চারটি ইউনিয়নে ঢলের পানিতে তলিয়ে গেছে কৃষকের সবজি ক্ষেত, ফসলি রোপা জমি, পুকুরসহ এলাকার রাস্তাঘাট ও বাড়িঘর।

সোমবার রাত থেকে জোয়ারের পানি অস্বাভাবিকভাবে পানি বাড়তে থাকে। এদিকে অতিবৃষ্টি ও ওপারের পাহাড়ি ঢলের পানিতে উপজেলার সীমান্তবর্তী চারটি ইউনিয়নের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। বৃষ্টির পানিতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে আখাউড়া ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট কার্যালয়।

স্থানীয় লোকজন জানান, আখাউড়া উপজেলার হাওড়া নদী এবং স্থলবন্দর এলাকার পাস দিয়ে বয়ে চলা কালন্দি খালটি দিয়ে ভারতীয় পাহাড়ি ঢলের পানি হু হু করে বাংলাদেশে প্রবেশ করছে।

এতে করে উপজেলার সীমান্তঘেঁষা মোগড়া ইউনিয়ন ও দক্ষিণ ইউনিয়নের আখাউড়া-আগরতলা সড়কের দুপাশের কালিকাপুর, বীরচন্দ্রপুর, আবদুল্লাহপুর, বঙ্গেরচর, রহিমপুর, সাহেবনগর, খলাপাড়া, উমেদপুর, সেনারবাদী, কুসুমবাড়ি, আওরারচর, ছয়ঘরিয়া, বাউতলা, দরুইন, বচিয়ারা, নোয়াপাড়া, নিলাখাত, টানুয়াপাড়া, ধাতুর পহেলা, চরনারায়নপুর ও আদমপুরসহ ত্রিপুরার পাহাড়ি ঢলের পানিতে উপজেলার মনিয়ন্দ ও ধরখার ইউনিয়নের ভাটামাথা, চন্দ্রপুর, ধরখার গ্রাম, ভিনাউটি, ভবানীপুর, রুটি, খারকুট, মিনারকুট, কুড়িবিল, পদ্মবিল, টনকি, ইটনা, কর্নেল বাজার এবং আখাউড়া পৌর শহরের তারাগন, খালাজোড়া গ্রামের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়েছে।