ছিনতাইকালে ধরা পড়লো পুলিশ কনস্টেবল ও আইনজীবী

প্রকাশিত: ৬:৪০ অপরাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ২০, ২০২২

গাজীপুরে পথচারীদের ভয় দেখিয়ে ও মারধর করে ছিনতাইকালে হাতে নাতে ধরা পড়েছে পুলিশের কনস্টেবল ও শিক্ষানবীশ আইনজীবী। এ সময় ছিনতাইকৃত নগদ ৩৬১০ টাকা তাদের কাছ থেকে উদ্ধার করে বাসন থানা পুলিশ। মহানগরীর নলজানী এলাকা থেকে তাদেরকে আটক করা হয়।

সোমবার (১৯ সেপ্টেম্বর) তাদের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে মামলা দায়ের করেছেন এক রিকশা চালক।

গ্রেফতারকৃতরা হলো- টাঙ্গাইলের কালিহাতি থানার চুনুটিয়া গ্রামের আব্দুল জলিল তালুকদারের ছেলে মনির হোসেন তালুকদার (২৮) ও একই জেলার দেলদুয়ার থানার গড়াসিন এলাকার রতন সরকারের ছেলে সজীব সরকার (২৭)। এদের মধ্যে গাজীপুর জেলা পুলিশের কনস্টেবল মনির হোসেন প্রেষণে এনএসআই’তে কর্মরত রয়েছেন। সজীব গাজীপুর আদালতের শিক্ষানবীশ আইনজীবী। তারা গাজীপুর শহরের একই এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকেন।

জিএমপি’র বাসন থানার ওসি মালেক খসরু খান জানান, রবিবার রাত ৯টার দিকে মহানগরীর নলজানী এলাকায় চান্দনা চৌরাস্তা-জয়দেবপুর সড়কে এক রিকশা গতিরোধ করে মনির ও সজীব। রিকশা থামানো মাত্রই তারা নিজেদের পুলিশ পরিচয় দিয়ে রিকশা চালক বাচ্চু মন্ডলের (২৮) কাছে অবৈধ জিনিস থাকার কথা বলে গ্রেফতারের ভয় দেখিয়ে চড় থাপ্পড় মেরে পকেট থেকে ৬১০ টাকা ছিনিয়ে নেয়। এ সময় রিকশা চালকের ডাক চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে এসে মনির ও সজীবকে আটক করে।

এ ঘটনার কিছুক্ষণ আগে তারা একই কৌশলে শাহীন নামের অপর এক পথচারীর কাছ থেকে ৩ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। খবর পেয়ে বাসন থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে আটককৃত ওই দুইজনকে থানায় এনে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা ছিনতাইয়ের কথা স্বীকার করে। এর আগেও তারা ছিনতাই করেছে বলে জানিয়েছে।

এ সময় তাদের দুইজনের কাছ থেকে ছিনতাইকৃত ৩ হাজার ৬১০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

Loading