শিপ্রার মামলায় চূড়ান্ত প্রতিবেদনের বিরুদ্ধে পুলিশের নারাজি

প্রকাশিত: ৪:২৪ অপরাহ্ণ , ডিসেম্বর ২৪, ২০২০

চাঞ্চল্যকর মেজর সিনহা মো. রাশেদ হত্যার ঘটনায় তার সহযোগী শিপ্রা দেবনাথের বিরুদ্ধে পুলিশের করা মাদক মামলায় র‌্যাবের দেয়া চূড়ান্ত প্রতিবেদনের বিরুদ্ধে নারাজি দিয়েছে পুলিশ। 

আজ (২৪ ডিসেম্বর) বৃহস্পতিবার দুপুর ১টার দিকে কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট দেলোয়ার হোসেনের আদালতে পূর্ব নির্ধারিত তারিখে র‌্যাবের দেয়া চূড়ান্ত প্রতিবেদনের বিরুদ্ধে পুলিশের করা মাদক মামলার বাদী এ এস আই শফিকুল ইসলাম এই নারাজি পিটিশন দেন।

বাদীর পক্ষে নারাজি পিটিশন দিয়ে আদালতে শুনানি করেন সিনিয়র আইনজীবী মোহাম্মদ জাকারিয়া। গত ১৩ ডিসেম্বর পুলিশের করা মাদক মামলায় তদন্ত করে চূড়ান্ত প্রতিবেদন আদালতে জমা দিয়েছিল র‌্যাব।

আদালতে শুনানি শেষে শিপ্রা দেবনাথের পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট অরুপ বড়ুয়া তপু জানান, ‘পুলিশের করা মাদক মামলায় র‌্যাবের চূড়ান্ত প্রতিবেদনের বিরুদ্ধে পুলিশ নারাজি দেওয়ায় আজ এই প্রতিবেদনের বিষয়ে কোন আদেশ দেননি আদালত। চূড়ান্ত প্রতিবেদন ও নারাজি পিটিশন নিয়ে শুনানি হয়েছে। আদালত পরবর্তী ধার্য তারিখে আদেশের জন্য রেখে দিয়ে শিপ্রা দেবনাথের জামিন স্থায়ী করেছেন।’

আদালত থেকে বের হয়ে নিহত মেজর সিনহার সহযোগি শিপ্রা দেবনাথ বলেন, ‘মামলাগুলোর বিষয়ে সন্তুষ্ট বা অসুন্তুষ্ট হওয়ার কিছুই নেই। আমরা কি কোন দিন সিনহাকে ফিরে পাব?’

গত ৩১ জুলাই রাতে টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ রোডে বাহারছরা পুলিশ চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন মেজর অব. সিনহা মো. রাশেদ। ঐ দিন রাতে মেরিন ড্রাইভ রোডে অবস্থিত হিমছড়ি নীলিমা রিসোর্টে মেজর সিনহার রুম তল্লাশি করে সিনহার সহযোগী শিপ্রা দেবনাথকে আটক করে রামু থানার পুলিশ।

এ সময় পুলিশ বেশ কিছু মাদক উদ্ধার করা হয়েছে উল্লেখ করে শিপ্রা দেবনাথের বিরুদ্ধে রামু থানায় পুলিশ বাদী হয়ে পরের দিন ১ আগস্ট  মাদক মামলা দায়ের করে। পরে আদালতের নির্দেশে এই মামলা তদন্ত করে গত ১৩ ডিসেম্বর আদালতে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন র‌্যাবের তদন্তকারী কর্মকর্তা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বিমান চন্দ্র কর্মকার।