নিষেধাজ্ঞা এলে বিএনপির ওপরই আসা উচিত

প্রকাশিত: ২:৫৮ অপরাহ্ণ , ডিসেম্বর ৮, ২০২৩

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, কোন ধরনের নিষেধাজ্ঞা নিয়ে উদ্বেগ নেই আওয়ামী লীগে, নিষেধাজ্ঞা এলে বিএনপির ওপর আসা উচিত। বিএনপি না এলেও ভোটের আমেজে ঘাটতি নেই। নির্বাচনে জোট শরীকদের সঙ্গে আসন ভাগাভাগির বিষয়টি ১৭ ডিসেম্বরের মধ্যে চূড়ান্ত হবে মন্তব্য করেন তিনি।

শুক্রবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে আওয়ামী লীগের সভাপতির ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিদেশীদের নিষেধাজ্ঞা নিয়ে আওয়ামী লীগে কোনো উদ্বেগ নেই। আমেরিকা তো বলছে, যারা সুষ্ঠু নির্বাচনে বাধা দেবে তাদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আসবে। সেটা হচ্ছে না কেন? তারা নাশকতা করছে, গাড়ি জ্বালাচ্ছে, ট্রেন পোড়াচ্ছে, মানুষ মারছে। এটাই তো সুষ্ঠু অবাধ নির্বাচনের বিরোধিতা। যুক্তরাষ্ট্র যদি নিষেধাজ্ঞা দিতে চায় সেটা শুধু একমাত্র বিএনপি ও তার দোসররাই নিষেধাজ্ঞা পাওয়ার যোগ্যতা অর্জন করেছে।

আওয়ামী লীগ আবারও ক্ষমতায় আসলে নতুন শ্রম আইন প্রণয়নে ব্যবস্থা নেবে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, পোশাক শ্রমিকদের ব্যবহার করে নিজেদের স্বার্থ উদ্ধারের রাজনীতি চলছে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী গার্মেন্টস সেক্টরের শ্রমিকদের বেতন বাড়িয়েছেন। এই সেক্টর উন্নয়নে, শ্রমিকদের স্বার্থ সংরক্ষণে আরও কিছু করার ব্যাপারেও সরকার অত্যন্ত যত্নশীল। কাজেই বিষয়টি নিয়ে পানি ঘোলা করার কারণ নেই।

জোটের সঙ্গে আসন ভাগাভাগি নিয়ে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ১৭ ডিসেম্বরের আগে এর সমাধান হবে। তিনি বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থীরা নির্বাচনে জেতার জন্য আওয়ামী লীগ প্রার্থীর বিরুদ্ধে কথা বলবে। পাবলিকের সাপোর্ট নেওয়ার জন্য তো বিরুদ্ধে কথা বলবেই।

ওবায়দুল কাদের বলেন, এদেশের জনগণ আজ নির্বাচনমুখী। কোন বাধাবিপত্তি, হুমকি, নাশকতা, অগ্নিসন্ত্রাস নির্বাচন অনুষ্ঠানে বাধা হতে পারবে না। নির্বাচনমুখী ভোটাররা যেকোনো উপায়ে নির্বাচন অনুষ্ঠানে বদ্ধপরিকর। এতে যারা বাধা দেবে, কার্যক্রমের বিপত্তি সৃষ্টি করবে, তাদেরকে দেশের ভোটাররাই প্রতিহত করবে। কারণ নির্বাচন অনুষ্ঠানে সন্ত্রাস বাধা হতে পারে না।

এসময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, মির্জা আজম, সুজিত রায় নন্দী, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, কার্যনির্বাহী সদস্য সাহাবুদ্দিন ফরাজী, মারুফা আক্তার পপি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Loading