রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র পরিদর্শনে ভারতীয় হাইকমিশনার

প্রকাশিত: ২:৪১ অপরাহ্ণ , ফেব্রুয়ারি ৪, ২০২৩

খুলনা সফরের দ্বিতীয় দিনে রামপালের মৈত্রী সুপার থার্মাল পাওয়ার প্ল্যান্ট পরিদর্শন করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার প্রনয় ভার্মা। শনিবার সকালে তিনি বিদ্যুৎকেন্দ্রটি পরিদর্শনে যান।

দেশের গুরুত্বপূর্ণ এই বিদ্যুৎকেন্দ্রটি প্রায় ২০০ কোটি ডলার ব্যয়ে নির্মাণ করা হয়েছে। যেখানে অর্থায়ন করেছে ভারতীয় এক্সিম ব্যাংক। তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রটিতে ব্যবহার করা হয়েছে আল্ট্রা সুপার ক্রিটিক্যাল টেকনোলজি।

বাগেরহাটের রামপালে অবস্থিত বাংলাদেশ-ইন্ডিয়া ফ্রেন্ডশিপ পাওয়ার কোম্পানি লিমিটেডের (বিআইএফপিসিএল) মাধ্যমে চলছে এই বিদ্যুৎকেন্দ্রটি। এই কেন্দ্রের মোট সক্ষমতা ১৩২০ মেগাওয়াট। এর মধ্যে প্রথম ইউনিট গত সেপ্টেম্বেরে উদ্বোধন করা হয়। ওই ইউনিট থেকে জাতীয় গ্রিডে বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হয় গত ডিসেম্বরে।

২০২২ সালের সেপ্টেম্বরে ভারত ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী ১৩২০ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন পাওয়ার প্ল্যান্টটির ফেইজ-১ উদ্বোধন করেন। ইতোমধ্যেই সেটি বাংলাদেশের জাতীয় গ্রিডে বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু করেছে। প্রকল্পটির ফেইজ-২ শিগগিরই সম্পন্ন হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

ভারত-বাংলাদেশ উন্নয়ন অংশীদারিত্বের একটি গুরুত্বপূর্ণ দিক হলো বিদ্যুৎ খাতে সহযোগিতা। মৈত্রী সুপার থার্মাল পাওয়ার প্ল্যান্ট হলো ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে সুগভীর মৈত্রী ও সহযোগিতার একটি দৃঢ় বহিঃপ্রকাশ।

এর আগে সফরের প্রথমদিন শুক্রবার (৩ ফেব্রুয়ারি) রূপসা রেলসেতু পরিদর্শন করেন ভারতীয় হাইকমিশনার।

Loading