করোনা সংক্রমণের বেশি ঝুঁকিতে যে ৩১ জেলা

প্রকাশিত: ১১:১১ অপরাহ্ণ , মার্চ ৩১, ২০২১

গত ১৩ মার্চ থেকে সারাদেশে বেড়ে গেছে করোনার সংক্রমণ।  আক্রান্ত আর মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে গেছে কয়েকগুণ। বিশেষ করে বুধবার (৩১ মার্চ ) দেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ পরিমাণে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করা হয়েছে।  আর সংক্রমণ সবচেয়ে বেশি ছড়াচ্ছে দেশের মোট ৩১টি জেলায়।  এসব জেলাকে উচ্চ সংক্রমণের ঝুঁকিতে থাকা জেলা হিসেবেও চিহ্নিত করেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। 

যে ৩১টি জেলাকে ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে সে জেলাগুলো হলো- মৌলভীবাজার, মুন্সীগঞ্জ, ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, নরসিংদী, খুলনা, নারায়ণগঞ্জ, রাজবাড়ি, ফেনী, নোয়াখালী, চাঁদপুর, শরীয়তপুর, লক্ষ্মীপুর, কুমিল্লা, বরিশাল, রাজশাহী, বগুড়া, নড়াইল, নীলফামারী, গাজীপুর, ফরিদপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, যশোর, মাদারীপুর, নওগাঁ, রংপুর, কিশোরগঞ্জ, নাটোর, টাঙ্গাইল ও কক্সবাজার।

দেশে দ্রুত করোনার সংক্রমণ বেড়ে যাওয়া প্রসঙ্গে গত ২৯ মার্চ স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা গণমাধ্যমকে বলেন, সংক্রমণ আস্তে আস্তে ছড়িয়ে পড়ছে।  সেদিক থেকে সংক্রমণের চেইন যদি আমরা ভাঙতে চাই, তাহলে সারা বাংলাদেশের প্রত্যেককে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

এদিকে মহামারি করোনা ভাইরাসে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন আরও ৫২ জন।  যা গত সাত মাসের মধ্যে ছিল সর্বোচ্চ।  এর আগে গত বছরের ২৬ আগস্ট ৫৪ জন মারা যায়।  এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৯ হাজার ৪৬ জনে।  এছাড়া দেশের ইতিহাসে গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ৫ হাজার ৩৫৮ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন।  এ নিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত মোট করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬ লাখ ১১ হাজার ২৯৫ জনে।

করোনাভাইরাস নিয়ে বুধবার (৩১ মার্চ) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদফতরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।সংস্থার অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও উল্লেখ করা হয়, এদিন সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ২১৯ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ৫ লাখ ৪২ হাজার ৩৯৯ জন। ## সময় সংবাদ