কাতারের ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নিলো সৌদি

প্রকাশিত: ৯:২৭ পূর্বাহ্ণ , জানুয়ারি ৫, ২০২১

তিন বছরেরও অধিক সময় পর কাতারের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিলো সৌদি আরব। কুয়েতের মধ্যস্ততায় স্থানীয় সময় সোমবার (৪ জানুয়ারি) সন্ধ্যা থেকে তুলে নেওয়া হয় এ নিষেধাজ্ঞা। খবর আল জাজিরার।

এর মধ্য দিয়ে মধ্যপ্রাচ্যের দুই ধনী দেশ সৌদি আরব ও কাতারের মধ্যে তিন বছরের দ্বন্দ্ব অবসান হলো। কাতারের জন্য সৌদি আরব ও তার মিত্র দেশগুলোর আকাশ, সীমান্ত ও নৌপথ পুনরায় খুলে দিয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কুয়েতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আহমেদ নাসের আল সাবাহ।

তিনি বলেছেন, ‘কুয়েতের আমির শেখ নাওয়াফের প্রস্তাবের ওপর ভিত্তি করে, কাতারের জন্য সীমান্ত, আকাশ ও নৌপথ খুলে দেওয়ার বিষয়ে আমরা একমত হয়েছি। আজ (সোমবার) সন্ধ্যা থেকেই এটি কার্যকর হবে।’

এর আগে, সন্ত্রাসবাদে সমর্থনের অভিযোগ এনে ২০১৭ সালে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করে সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব অমিরাত, বাহরাইন এবং মিসর। সৌদি আরব নেতৃত্বাধীন জোটের আরোপিত এই নিষেধাজ্ঞাকে বরাবরই অগ্রহণযোগ্য এবং ভিত্তিহীন বলে আসছিল কাতার এবং এটা তুলে নেওয়ার পক্ষে দাবি ছিল তাদের।

আর এই দাবির সমর্থন দিয়ে আসছিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। এ দুই দেশের সম্পর্ক স্বাভাবিক করার চেষ্টা করেন ট্রাম্প। এ জন্য তার উপদেষ্টা জামাই জারেড কুশনারকে সম্প্রতি মধ্যপ্রাচ্যে পাঠান। কুশনার কাতার ও সৌদি আরবের সঙ্গে পৃথক পৃথক আলোচনা করেন।

প্রথমদিকে কুশনার সৌদি প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে রিয়াদে এবং পরে দোহায় কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানির সঙ্গে আলোচনায় বসেন।

মধ্যপ্রাচ্যের দুই ধনী দেশ সৌদি-কাতারের সম্পর্ক স্বাভাবিক হওয়া প্রবাসী বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদের জন্যও স্বস্তিদায়ক। এই সমস্যার সমাধান হওয়ায় কাতারের বাংলাদেশি ব্যবসায়ীরা আরও বেশি লাভবান হতে পারবেন।