রাজশাহীতে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীকে কুপিয়ে জখম

প্রকাশিত: ১২:৫১ অপরাহ্ণ , ডিসেম্বর ২০, ২০২০

রাজশাহীতে ফারজানা তাসনিম সিমরান (২০) নামে এক বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীকে কুপিয়ে জখম করার ঘটনা ঘটেছে। গতকাল শনিবার (১৯ ডিসেম্বর) বিকেলে নগরীর বোয়ালিয়া থানার টিকাপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

রাতে ভুক্তভোগীর মা বোয়ালিয়া থানায় বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন। এ হামলায় অভিযুক্ত এক তরুণীকে আটক করেছে পুলিশ।

ভুক্তভোগী ফারজানা তাসনিম সিমরান শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাগ্রিবিজনেস বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। তিনি নগরীর বোয়ালিয়া থানার টিকাপাড়া এলাকার মৃত আলতাফ হোসেনের মেয়ে।

সিমরান বর্তমানে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের ৩নং ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন আছেন।অন্যদিকে, অভিযুক্ত ঝর্না মহানগরীর বোয়ালিয়া থানার টিকাপাড়া মিরেরচক এলাকার বাসিন্দা।

ভুক্তভোগীর মা ফরিদা ইয়াসমিন বলেন, ঝর্না শনিবার বিকেলে আমাদের বাড়িতে আসে। তখন আমি রান্না করছিলাম। আমার মেয়ে সিমরান তার বান্ধবীর সঙ্গে দেখা করতে বাড়ির দরজার তালা খুলে বের হচ্ছিল। এ সময় হঠাৎ ঝর্না তার মাথার চুল ধরে বঁটি দিয়ে বুকের বাম পাশে সজোরে আঘাত করে। এরপর সিমরানের চিৎকারে ঝর্না বাড়ির দরজা খুলে পালানোর চেষ্টা করলে স্থানীয়রা তাকে আটক করে।

এ ব্যাপারে নগরীর বোয়ালিয়া থানার ডিউটি অফিসার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) শরিফুল ইসলাম বলেন, ঘটনার পর ঝর্নাকে আটক করা হয়। ঘটনাস্থলে তল্লাশি চালিয়ে তার ভ্যানিটি ব্যাগ থেকে হামলায় ব্যবহৃত বঁটিসহ একটি ধারালো চাপাতি উদ্ধার করা হয়েছে। কী কারণে সে হামলা চালিয়েছে, তা এখনো জানা যায়নি। আমরা বিষয়টি খতিয়ে দেখছি।