কেবল বোকারাই স্ত্রীকে সব কথা বলে না

প্রকাশিত: ৮:৩৬ অপরাহ্ণ , নভেম্বর ১, ২০২০

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, কেবল বোকারাই স্ত্রীকে সব কথা বলে না। আমি সব কিছু নিয়ে স্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা করি। সরকার পরিচালনা করতে গিয়ে আমি যেসব সমস্যার সম্মুখীন হই, তা নিয়ে আলোচনা করি। বিভিন্ন জটিল পরিস্থিতি নিয়েও আলোচনা করি।’

জার্মান ম্যাগাজিন ‘দেয়ার স্পিগেলস’-এর সাংবাদিক জুজানে কোয়েলডকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে শুক্রবার এ কথা বলেন তিনি। জিও টিভি এ বিষয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করে।

নিজের স্ত্রী বুশরা খানকে নিয়ে ইমরান খান আরও বলেন, ‘বুশরা যথেষ্ট জ্ঞানী। তার সঙ্গে আমার আত্মার সম্পর্ক। সে আমার সঙ্গী। আমি তাকে ছাড়া বাঁচতে পারব না।’

স্ত্রী বুশরা খানকে ছাড়া বাঁচবেন না পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।

পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ইমরান খান ২০১৮ সালে তৃতীয়বারের মতো তার আধ্যাত্মিক ধর্মগুরু বুশরা মানেকার সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। এরপর বুশরার নামের সঙ্গে খান ‍যুক্ত হয়। ওই বিয়ের পরই ইমরান খানের ‘ভাগ্য বদলাতে’ শুরু করে। রাজনীতিতে ব্যাপক সফলতা পান তিনি। তৃতীয় সারির দল থেকেও সবাইকে অবাক করে দিয়ে মুসলিম বিশ্বের একমাত্র পরমাণু শক্তিধর দেশের ক্ষমতার মসনদে আরোহন করেন। তবে ইমরান খানের সমালোচকদের মতে, মূলত সেনাবাহিনীর সহায়তায় ক্ষমতায় এসেছেন পাকিস্তান ক্রিকেট দলের সাবেক বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক।

প্রসঙ্গত, ১৯৯৫ সালে ব্রিটিশ নাগরিক জেমিমা গোল্ডস্মিথকে বিয়ে করেছিলেন একসময়কার প্লেবয় ইমরান খান। ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে পাকিস্তানের লাহোরে থাকতেন জেমিমা। কিন্তু ইহুদি পরিবারে জন্ম হওয়ায় পাকিস্তানের মানুষ তাকে তেমন পছন্দ করতে পারেননি। ইমরান আর জেমিমার ঘর ভাঙে ২০০৪ সালে। জেমিমার গর্ভে জন্ম নেয়া দুই ছেলে আছে ইমরান খানের। বিচ্ছেদের পর দুই ছেলে সুলাইমান খান ও কাশিম খানকে নিয়ে যুক্তরাজ্যেই থাকেন জেমিমা গোল্ডস্মিথ।