মুম্বইকে বিদায় জানালেন কঙ্গনা

প্রকাশিত: ১০:২৬ অপরাহ্ণ , সেপ্টেম্বর ১৪, ২০২০

শিবসেনার সঙ্গে প্রকাশ্যে সংঘাত, রাজ্যপালের সঙ্গে সাক্ষাৎ এবং দেশ জুড়ে চলা বিতর্কের মধ্যেই মুম্বই ছাড়লেন অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউত। কিন্তু যাওয়ার আগে টুইটে আরও একবারপাক অধিকৃত কাশ্মীরের সঙ্গে তুলনা করে গেলেন মুম্বইকে।
আজ সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকালে নিজের সোশ্যাল মিডিয়ায় কঙ্গনা লেখেন, ‘ভারাক্রান্ত হৃদয়ে মুম্বই ছাড়ছি। গত কয়েক দিন ধরে যে ভাবে আমাকে বারংবার আক্রমণ করা হচ্ছিল, ভয় দেখান হচ্ছিল, তাতে করে পাকিস্তানের সঙ্গে তুলনা একেবারেই যথার্থ ছিল।’
ইতোমধ্যেই চণ্ডীগড় পৌঁছে গেছে কঙ্গনা। এখান থেকেই হিমাচল প্রদেশের মানালিতে নিজের বাড়িতে যাবেন কঙ্গনা। তবে কঙ্গনার টুইট বাণ সেখানেও অব্যাহত। কঙ্গনা টুইটে জানান, চণ্ডীগড়ে পৌঁছন মাত্রই তার নিরাপত্তা কমিয়ে দেয়া হয়েছে। মানুষ তাকে সাদরে আমন্ত্রণ জানাচ্ছেন।
আবারও শিবসেনাকে ‘সনিয়া সেনা’ বলে উল্লেখ করে কঙ্গনা লেখেন, ‘এই যাত্রায় বেঁচে গেলাম। একটা সময় ছিল যখন মুম্বইয়ে মায়ের স্পর্শ পেতাম। কিন্তু এখন যা পরিস্থিতি দাঁড়িয়েছে তাতে আমি যে বেঁচে রয়েছি সেটাই আশ্চর্যের। আমি ভাগ্যবান। যে মুহূর্তে শিবসেনা সনিয়া (গাঁধী) সেনায় পরিণত হল সেই মুহূর্তে মুম্বইয়ের প্রশাসন সন্ত্রাসের আকার নিলো।’
গেল ৯ সেপ্টেম্বর মুম্বইয়ে আসেন কঙ্গনা। পালি হিলে তার অফিস ভাঙাকে কেন্দ্র করে কঙ্গনা এবং শিবসেনার সংঘাত তীব্র আকার নিতে শুরু করে। প্রকাশ্যেই মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরেকে টুইটে কঙ্গনা হুঁশিয়ারি দেন, ‘আজ আমার ঘর ভেঙেছে, কাল তোর অহংকার ভাঙবে।’ সূত্র: আনন্দবাজার।