সত্যি মারা গেছেন কিম?

প্রকাশিত: ৯:৪৮ পূর্বাহ্ণ , আগস্ট ২৫, ২০২০

শুরুতে জল্পনা ছিল মৃত্যু হয়েছে তার। এরপর খবর আসে শারীরিক অসুস্থতা। কারো কারো দাবি ছিল, অসুস্থ অবস্থায় কোমায় রয়েছেন তিনি। এবার নতুন করে আবারও মৃত্যুর সংবাদ। তাহলে কী সত্যি মারা গেছেন উত্তর কোরিয়ার শাসক কিম জং উন? প্রশ্ন এখন অনেকের মনে।

জানা গেছে রাষ্ট্রিয় কাজের দায়িত্ব সামলাচ্ছেন তাঁর বোন কিম ইয়ো জং।

আন্তর্জাতিক সম্পর্কবিষয়ক বিশেষজ্ঞ ও সাংবাদিক রয় ক্যালি দাবি করেছেন, কিমের মৃত্যু হয়েছে!

উত্তর কোরিয়ার ভ্রমণ করা এই সাংবাদিকের মতে, কিম জং উন মারা গেছেন। আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমও কিমের মৃত্যুর এই সংবাদটি প্রকাশ করেছে।

ওই সাংবাদিক জানিয়েছেন, তার বিশ্বাস কোমাতেই মারা গেছেন কিম জং উন। তিনি বলেন, আমি সত্যি বিশ্বাস করি তিনি মারা গেছেন। কিন্তু বিষয়টি নিয়ে আপনি তার দেশের সঙ্গে কথা বলতে পারবেন না।

তাঁর দাবি, দেশের শীর্ষ নেতৃত্বে দ্রুত ঘটতে থাকা পরিবর্তনের কারণেই ‘সুপ্রিম নেতা’ কিমের স্বাস্থ্য সম্পর্কে দেশের নাগরিকদের জানানো হয়নি।

রয় ক্যালির দাবি সমর্থনে এখনো কোনো বিবৃতি পিয়ংইয়ং বা দক্ষিণ কোরিয়ার পক্ষে দেওয়া হয়নি। তবে রয়ের সঙ্গে যদিও একমত নন পররাষ্ট্র বিশেষজ্ঞ রুথ অ্যান মন্টি। তাঁর মতে, ‘গুরুতর অসুস্থ’ হলেও প্রয়াত হননি কিম জং উন।

এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত সিওলের গোয়েন্দাদের রিপোর্ট অনুযায়ী, গুরুতর অসুস্থ কিম জং উন। কিন্তু তিনি মারা যাননি।

সম্প্রতি দক্ষিণ কোরিয়ার প্রাক্তন প্রেসিডেন্টের সহযোগী ও কূটনীতিক চ্যাং সং মিন দাবি করেন, ‘আমার কাছে খবর কিম জং উন কোমায় রয়েছেন।’ এরপরই জোর চাঞ্চল্য দেখা দেয়। উত্তর কোরিয়ার এই শাসকের শারীরিক অবস্থা নিয়ে লেখালেখি শুরু হয়ে যায়। তবে কোমায় থাকলেও কিমের ‘জীবিন শেষ হয়নি’ বলে জানিয়েছিলেন দক্ষিণ কোরিয়ার কূটনীতিক।

উল্লেখ্য, এর আগেও কিমের মত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়েছিল আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলোতে। কিন্তু তিনি সংবাদমাধ্যমের সামনে হাজির হন। এবার নতুন করে আবারও ছড়িয়ে পড়লো কিমের মৃত্যুর সংবাদ।
সূত্র : এই সময়, হিন্দুস্থান টাইমস, মিরর