প্রস্তুত ৩ লাখ মসজিদ

প্রকাশিত: ১১:০৩ অপরাহ্ণ , জুলাই ৩১, ২০২০

করোনার প্রভাবে কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে এবার পালিত হবে ঈদুল আযহা। খোলা মাঠে হবে না কোন ঈদের জামাত। জামায়াত হবে মসজিদে। স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দুরত্ব মেনে নামাজ ও কোরবানিসহ অন্যান্য কার্যক্রম পালন করার আহ্বান জানিয়েছে ইসলামি ফাউন্ডেশন। 

এদিকে ঈদকে কেন্দ্র করে জঙ্গি হামলা আশঙ্কা মাথায় রেখে সারাদেশে জোরদার করা হয়েছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা। ঈদের দিন স্বাভাবিক থাকবে আবাহাওয়া। করোনা মহামারিতে এবারও ভিন্ন আঙ্গিকে উদযাপিত হবে ঈদুল আযহা। সংক্রমণ রোধে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

করোনা সংক্রমণের কথা মাথায় রেখে মসজিদে মসজিদে ঈদের নামাজ আদায়ের কথা বলা হয়েছে ইসলামি ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে। প্রস্তুত রয়েছে দেশের প্রায় ৩ লাখ মসজিদ।

ইসলামি ফাউন্ডেশনের সচিব কাজী নূরুল ইসলাম জানিয়েছেন সবার সুস্থতার কথা মাথায় রেখে নানাবিধ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, সবাই হাত সেনিটাইজ করে মসজিদে প্রবেশ করবে সে, সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে নামাজ পড়বে এবং খোলা মাঠে কোন ঈদ জামাত হবে না।

ঈদে আবহাওয়া নিয়ে শংকা নেই। দেশের কিছু কিছু এলাকার ছাড়া সারাদেশের আবহাওয়া স্বাভাবিক থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস।

এদিকে ঈদে জঙ্গি হামলা হতে পারে এমন তথ্য রয়েছে গোয়েন্দাদের কাছে। বিষয়টি মাথায় রেখে রাজধানীসহ গোটা দেশ জুড়ে নেয়া হয়েছে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা। ঈদকে কেন্দ্র করে সারাদেশে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন এবং চেকপোস্ট বসিয়ে করা হচ্ছে তল্লাসি।