ঘুর্ণিঝড় রিমেলের ধ্বংসযজ্ঞ পরিদর্শন করেছেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত: ৫:৩৯ অপরাহ্ণ , মে ৩০, ২০২৪
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ছবি সংগৃহীত

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হেলিকপ্টার থেকে পটুয়াখালী জেলার মঠবাড়িয়া ও পাথরঘাটা এলাকায় ঘূর্ণিঝড় রিমেলের ধ্বংসযজ্ঞের চিত্র পরিদর্শন করেছেন।
ঢাকা থেকে পটুয়াখালী যাওয়ার পথে হেলিকপ্টারটি যখন ধীর গতিতে অনেক নীচু দিয়ে উড়ছিল তখন তিনি সুপার স্টর্ম রিমেল-আক্রান্ত দু’টি এলাকা প্রত্যক্ষ করেন।
প্রধানমন্ত্রীকে বহনকারি হেলিকপ্টারটি ঢাকা থেকে যাত্রা শুরুর প্রায় দেড় ঘণ্টা পর আজ দুপুর ১২টা ২০ মিনিটে পটুয়াখালী জেলার কলাপাড়ার খেপুপাড়া সরকারি মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন হেলিপ্যাডে অবতরণ করে।
প্রধানমন্ত্রী এখানে সরকারি মোজাহারউদ্দিন বিশ্বাস ডিগ্রি কলেজে ঘূর্ণিঝড় দুর্গত মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করেন।
এরপর তিনি পটুয়াখালী-কুয়াকাটা সড়কের শহীদ শেখ কামাল সেতু পরিদর্শন করেন এবং পরে তাঁর বিভাগীয় পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় করার কথা রয়েছে।
শেখ হাসিনার পটুয়াখালী সফরকে ঘিরে জেলা প্রশাসন ও ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সর্বাত্মক প্রস্তুতি নিয়েছে।
পটুয়াখালী জেলার কলাপাড়ায় দিনব্যাপী কর্মসূচি শেষ করে বিকেল ৩টায় ঢাকায় রওনা হবেন প্রধানমন্ত্রী ও ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হাসিনা।
প্রচন্ড ঝড় রিমেলে কমপক্ষে ১৩ জন নিহত হয়েছে, ৩৫ হাজারেরও বেশি বাড়িঘর ধ্বংস হয়েছে এবং ১৯টি জেলার ৩৭ লাখেরও বেশি লোককে মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে।
রোববার সন্ধ্যায় ঘণ্টায় ১৩০ কিলোমিটার বেগে ঝড়টি পটুয়াখালীর খেপুপাড়ার কাছে আছড়ে পড়ে।
সূত্রমতে, জেলায় এখন পর্যন্ত ৩২৭,০০০ জন লোক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং প্রায় ২৩৫টি বাড়ি সম্পূর্ণ এবং ১,৮৬৫টি আংশিকভাবে ধ্বংস হয়েছে।
কৃষি খাতে ২৬ কোটি টাকার বেশি ক্ষতি হয়েছে এবং মৎস্য খাতে ২৮ কোটি টাকার বেশি ক্ষতি হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

Loading