কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে ২৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঋণ দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক

প্রকাশিত: ১:০৪ অপরাহ্ণ , জুন ২২, ২০২০

বাংলাদেশকে আরও ২৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঋণ দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক। বাংলাদেশি মুদ্রায় এর পরিমাণ প্রায় ২ হাজার ১২৫ কোটি টাকা (১ ডলার ৮৫ টাকা ধরে)। পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য কাজের সুযোগ সৃষ্টি এবং বিনিয়োগ, ব্যবসার পরিবেশের আধুনিকায়ন, কর্মীদের সুরক্ষা ও সক্ষমতা বাড়াতে এ ঋণ দিচ্ছে সরকার।

রোববার (২১ জুন) অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব ফাতিমা ইয়াসমিন এবং বাংলাদেশে বিশ্ব ব্যাংকের কান্ট্রি ডিরেক্টর মার্সি টেমবনের মধ্যে বিষয়ে একটি চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে। অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বাংলাদেশ এই ঋণ শোধ করতে ৫ বছরের গ্রেস পিরিয়ডসহ মোট ৩০ বছর সময় পাবে। এ ঋণের অপরিশোধিত অর্থের ওপর বার্ষিক ১.২৫ শতাংশ হারে সুদ এবং ০.৭৫ শতাংশ হারে সার্ভিস চার্জ দিতে হবে।
এতে আরও বলা হয়, সরকার দেশের কর্মক্ষম জনগোষ্ঠীর জন্য পর্যাপ্ত ও মানসম্পন্ন কর্মসংস্থানের সুযোগ ও পরিবেশ তৈরিসহ সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও সংস্থার সংশ্লিষ্টতায় সহায়ক কিছু নীতিকৌশল/বিধিবিধান সংস্কার ও আধুনিকায়নের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। সরকারের এই উদ্যোগ ও প্রস্তাবিত সংস্কার পরিকল্পনা বাস্তবায়নকল্পে বিশ্বব্যাংক ২০১৮-১৯ থেকে গত ৩ অর্থবছরে মোট ৭৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের ডেভেলপমেন্ট পলিসি ক্রেডিট (ডিপিসি) ঋণ সহায়তা দিয়ে আসছে।