কাতার থেকে ফিরলেন ৪০৯ বাংলাদেশি

প্রকাশিত: ১১:১৬ পূর্বাহ্ণ , জুন ১১, ২০২০

করোনা পরিস্থিতির কারণে বিমান চলাচল বন্ধ থাকায় বিশেষ ফ্লাইটে দেশে ফিরেছেন কাতারে আটকে পড়া ৪০৯ জন বাংলাদেশি।

এসব বাংলাদেশিকে নিয়ে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের বিশেষ ফ্লাইটটি আজ বৃহস্পতিবার (১১ জুন) সকাল সাড়ে ৯টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের উপ-মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে গত ৮ মার্চ থেকে কাতার-বাংলাদেশ যাত্রীবাহী বিমান চলাচল বন্ধ রয়েছে। কাতারের বাংলাদেশ দূতাবাসের ব্যবস্থাপনায় যাত্রীরা কাতার থেকে ইস্যু করা করোনামুক্তির স্বাস্থ্য সনদ নিয়েছেন। বিমানের ৭৭৭-৩০০ মডেলের এই উড়োজাহাজে ৩৫টি বিজনেস ক্লাস ও ৩৮৪টি ইকোনমি ক্লাসের আসন রয়েছে। যাত্রীদের মধ্যে কাতারে বসবাসরত বাংলাদেশি পরিবার ও সাধারণ শ্রমিক থেকে শুরু করে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রবাসীরা রয়েছেন।

কাতারে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আসুদ আহমদ গণমাধ্যমকে বলেন, ‘কাতারের পক্ষ থেকে কাউকে পাঠিয়ে দেওয়ার জন্য কোনো চাপ নেই। যাঁরা স্বেচ্ছায় অনেক দিন ধরে যেতে চাচ্ছিলেন এবং দূতাবাসে নিবন্ধন করেছিলেন, তাঁদের জন্য এই ফ্লাইটের ব্যবস্থা করা হয়েছে। যেহেতু নিবন্ধনকারীদের সংখ্যা বেশি, তাই বাকিদের জন্য আমরা আরেকটি ফ্লাইটের ব্যবস্থা করব।’

১৫ জুন থেকে কাতার এয়ারওয়েজের দোহা থেকে ঢাকায় যাত্রী বহন করার কথা রয়েছে। তবে আপাতত বাংলাদেশ থেকে কেউ কাতারে প্রবেশের সুযোগ না পেলেও ট্রানজিট যাত্রী হিসেবে দোহায় বিমানবন্দরে অবতরণ করতে পারবেন। শিগগির কাতারের কারাগার থেকে মুক্তি পাওয়াসহ অন্য বাংলাদেশিদের নিয়ে কাতার এয়ারওয়েজের আরেকটি ফ্লাইট ঢাকায় যাবে বলে জানা গেছে।

আগামী ১ আগস্ট থেকে কাতারে প্রবাসীদের প্রবেশ শুরু হবে বলে জানিয়েছে কাতার দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা সুপ্রিম কমিটি। সেই হিসেবে ১ সেপ্টেম্বর থেকে স্বাভাবিকভাবে যে কেউ কাতারে প্রবেশ করতে পারবেন।