জ্যোতিকে নিয়ে হচ্ছে

অসুস্থ বাবাকে নিয়ে ১২০০ কিমি পাড়ি

প্রকাশিত: ২:৫৯ অপরাহ্ণ , মে ২৯, ২০২০

এবার আরেকটি ভিন্নধর্মী সিনেমা তৈরি করছেন বলিউডের বিখ্যাত পরিচালক বিনোদ কাপড়ি। নাম দিয়েছেন ‘সাইকেল গার্ল’। সম্প্রতি অসুস্থ বাবাকে নিয়ে ১২০০ কিলোমিটার সাইকেল চালিয়ে শহর থেকে গ্রামে ফিরে অনন্য নজির স্থাপন করেছেন ভারতের এক কিশোরী। তাকে নিয়েই সিনেমাটি নির্মাণ করছেন তিনি।

ওই কিশোরীর নাম জ্যোতি কুমারী। বয়স মাত্র ১৫। তার বাবা মোহন পাসওয়ান ভারতের অন্যতম প্রসিদ্ধ শহর গুরুগ্রামে রিকশা চালাতেন। কিন্তু দেশজুড়ে চলমান লকডাউনে তা বন্ধ হয়ে যায়। এর মধ্যে গত মার্চে দুর্ঘটনার কবলে পড়েন তিনি।

মোহনের পৈতৃক নিবাস বিহারের দ্বারভাঙা জেলার সিরুহুলিয়া গ্রামে। বাবার অসুস্থতার খবর পেয়ে সেখান থেকে গুরুগ্রামের উদ্দেশে রওনা দেয় জ্যোতি। কিন্তু সেখানে গিয়ে আটকা পড়ে সে।

বসে খেতে খেতে একপর্যায়ে মোহনের সঞ্চিত টাকা শেষ হয়ে যায়। ফলে তাকে ভাড়া ঘর ছেড়ে দিতে বলেন বাড়িওয়ালা। উদ্ভূত প্রতিকূল পরিস্থিতিতে গ্রামে ফেরা ছাড়া দ্বিতীয় কোনো উপায় ছিল না তার।

অগত্যা ৫০০ টাকা দিয়ে সেকেন্ড হ্যান্ড সাইকেল কেনে জ্যোতি। এর পর অসুস্থ বাবাকে নিয়ে ইট-পাথর, দালানকোঠার শহর ছেড়ে নির্মল বাতাস, সবুজ শ্যামল গ্রামের উদ্দেশে রওনা দেয় সে। এর মধ্যে দুদিন অভুক্ত থাকতে হয়েছে তাকে। তবু তার মানসিক দৃঢ়তায় ফাটল ধরেনি। হাল ছাড়েনি ও।

টানা সাত দিন রুগ্ন বাবাকে সাইকেলে চাপিয়ে ১২০০ কিলোমিটার রাস্তা পেরিয়ে গ্রামে ফেরে জ্যোতি। কয়েক দিন ধরেই সেই খবর বাতাসে ভেসে বেড়াচ্ছে। তা কানে পৌঁছতেই তাকে ট্রায়ালে ডেকেছে সাইকেল ফেডারেশন অব ইন্ডিয়া। দিল্লিতে প্রশিক্ষণে তার যাবতীয় খরচ বহন করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে তারা। অনেকেই তাদের আর্থিকভাবে সহায়তাও করছেন।

জ্যোতির এ লড়াই কেন্দ্র করেই সিনেমা বানাতে চাচ্ছেন বিনোদ। ইতিমধ্যে তার বাড়ির লোকজনের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি।

খ্যাতনামা এ বলি নির্মাতা বলেন, লকডাউনে যেসব শ্রমিক পায়ে হেঁটে বা সাইকেলে চেপে হাজার হাজার কিমি পথ অতিক্রম করে বাড়ি ফিরেছেন, তাদের ওপর শর্টফিল্ম বানাচ্ছি। আমি এরই মধ্যে জ্যোতির ওপর সিনেমা বানানোর প্রস্তুতি শুরু করেছি। তার বাবার কাছ থেকে অনুমতিও নিয়েছি।

তথ্যসূত্র: জিনিউজ