জরুরি প্রয়োজন ছাড়া রাত ১০টার পর বাইরে যাওয়া যাবে না

প্রকাশিত: ২:১০ অপরাহ্ণ , আগস্ট ৩, ২০২০

করোনাভাইরাস সংক্রমণ মোকাবিলায় দেশে জনসাধারণের চলাচলে নিয়ন্ত্রণসীমা ৩১ আগস্ট পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে। আগে এই বিধিনিষেধ ৩ আগস্ট পর্যন্ত বলবৎ ছিল। এ বিষয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে অফিস আদেশ জারি করেছে। আদেশে বলা হয়েছে, জরুরি প্রয়োজন ছাড়া রাত ১০টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত বাসার বাইরে যাওয়া যাবে না। এছাড়া দোকানপাট, শপিং মল রাত ৮টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে।

আজ সোমবার (৩ আগস্ট) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের উপসচিব মোহাম্মদ আব্দুল ওয়াদুদ চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক স্মারকে বিষয়টি জানানো হয়। এতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাসহ ১০টি নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।
এতে বলা হয়, রাত ১০টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাসার বাইরে যাওয়া যাবে না। তবে ক্রয়-বিক্রয়, কর্মস্থলে যাতায়াত, জরুরি পরিষেবা, ওষুধ ক্রয়, চিকিৎসা সেবা, মৃতদেহ দাফন ও সৎকার ইত্যাদি কাজে বাইরে বের হওয়া যাবে। তবে বাসার বাইরে সবসময় মাস্ক পরে, পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। অন্যথায় আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হবে।
এ ছাড়া হাটবাজার, দোকানপাট, শপিং মলে পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে পালন করতে হবে। শপিং মলের প্রবেশ মুখে তাপমাত্রা পারিমাপক যন্ত্র এবং হাত ধোয়ার ব্যবস্থাসহ স্যানিটাইজারের ব্যবস্থা রাখতে হবে। শপিং মলে আগত যানবাহনকে অবশ্যই জীবাণুমুক্ত রাখতে হবে। হাটবাজার, দোকান-পাট শপিং মল আবশ্যিকভাবে রাত ৮টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে বলেও নির্দেশনায় বলা হয়েছে।
এ ছাড়া সরকারি-বেসরকারি অফিস স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা থাকবে বলেও অফিস আদেশে জানানো হয়েছে।
অফিসে আদেশে বলা হয়, করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে অসুস্থ, স্বাস্থ্যঝুঁকিপূর্ণ কর্মকর্তা-কর্মচারীদের অফিসে যাওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে। এ ছাড়া সব ধরনের সভা-সমাবেশ, জমায়েত, ধর্মীয়-সামাজিক অনুষ্ঠান বন্ধ থাকবে। তবে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মেনে মসজিদ কিংবা উপাসনালয়ে ধর্মীয় কার্যাবলি পালন করা যাবে।