ঈদের পরই সারা দেশে সরকার পতনের আন্দোলন শুরু হবে -রুহুল কুদ্দুস

প্রকাশিত: ৯:১৯ অপরাহ্ণ , এপ্রিল ১৫, ২০২২

বিএনপির রাজশাহী বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু বলেছেন, ঈদের পরই সারা দেশে সরকার পতনের আন্দোলন শুরু হবে। এই সরকারকে বিদায় না করে রাজপথ ছাড়বেন না তাঁরা।

শুক্রবার বিকেলে রাজশাহী নগরের মালোপাড়ায় দলীয় কার্যালয়ে মহানগর বিএনপির আয়োজনে দলটির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সুস্থতা কামনা করে দোয়া ও আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

রুহুল কুদ্দুস তালুকদার বলেন, গত পরশু দিন আমেরিকার সরকারের পক্ষ থেকে প্রেস নোট দেওয়া হয়েছে। কী প্রেস নোট, বাংলাদেশে বিগত দিনে যে নির্বাচন হয়েছে, প্রতিটা নির্বাচন হচ্ছে নির্বাচনবিহীন ভোট। অর্থাৎ দিনের ভোট রাতে হয়েছে। কোনো নির্বাচনে জনগণ অংশগ্রহণ করেননি। অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন হয়নি। যে নির্বাচনে জনগণ অংশ নেননি, সেই নির্বাচনের মাধ্যমে এই সরকার রাষ্ট্রক্ষমতায় অবৈধভাবে আছে। এই অবৈধ সরকারকে আমেরিকা সরকার স্বীকৃতি দেয়নি।

বিএনপি সরকারের সাবেক এই উপমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার আজ বাংলাদেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দিয়েছে। দুর্নীতি রন্ধ্রে রন্ধ্রে পৌঁছে গিয়েছে। শ্রীলঙ্কায় মানুষ রাস্তায় নেমেছে। সেখানে খবরের কাগজ ছাপা হবে, সেই কাগজ নেই। বিদ্যুৎ নেই, ছাত্র লিখবে পরীক্ষার খাতায়, সেই কাগজ নেই। আজ বাংলাদেশের অবস্থাও তাই। তাই এখান থেকে পরিত্রাণের জন্য আন্দোলনের বিকল্প নেই। সরকারের যেসব লোকজন রাষ্ট্রীয় পরিচালনায় রয়েছেন, তাঁরা দুর্নীতি করছেন।

মামলা দিয়ে, হামলা করে, গুম করে, ভয় দেখিয়ে বিএনপিকে আটকিয়ে রাখা যাবে না বলে মন্তব্য করেন রুহুল কুদ্দুস তালুকদার। তিনি বলেন, সারা পৃথিবীতেই আজ গণতন্ত্রের বিজয় রচিত হচ্ছে। ঈদের পর থেকে তাঁদের একটাই শপথ, এই অবৈধ, স্বৈরাচার সরকারের পতন ঘটাতে হবে। যতক্ষণ পর্যন্ত এই সরকার ক্ষমতা থেকে না হটবে, ততক্ষণ পর্যন্ত রাস্তা থেকে তাঁরা কেউ হটবেন না। এটাই হচ্ছে বিএনপির শপথ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আইনজীবী এরশাদ আলী ইশা। এতে বক্তব্য দেন বিএনপির বিভাগীয় সহসাংগঠনিক সম্পাদক শাহীন শওকত খালেক, রাজশাহী মহানগর বিএনপির সদস্যসচিব মামুন অর রশীদ মামুন প্রমুখ।